কালের কণ্ঠের ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক মোস্তফা কামাল

বৃহস্পতিবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৯

কালের কণ্ঠের নির্বাহী সম্পাদক মোস্তফা কামাল পত্রিকাটির ভারপ্রাপ্ত সম্পাদকের দায়িত্ব লাভ করেছেন। তিনি বিগত প্রায় আট বছর ধরে নির্বাহী সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করে আসছেন। এ ছাড়া গত তিন বছর ধরে তিনি পত্রিকাটি সামগ্রিকভাবে দেখভাল করছিলেন।

শুরুতে ২০০৯ সালের মে মাসে তিনি সিনিয়র সহকারী সম্পাদক হিসেবে যোগ দেন এবং টিম গঠনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেন। ২০১০ সালের জানুয়ারি মাসেই উপ-সম্পাদক হিসেবে নিয়োগ লাভ করেন। কালের কণ্ঠে যোগদানের আগে তিনি প্রথম আলোতে বিশেষ প্রতিনিধি হিসেবে কর্মরত ছিলেন। ১৯৯৮ সালে প্রথম আলোর জš§লগ্ন থেকেই তিনি ক‚টনৈতিক প্রতিবেদক হিসেবে কাজ শুরু করেন। ২০০৯ সালের মে মাস পর্যন্ত তিনি ক‚টনৈতিক বিটে দায়িত্ব পালনের পাশাপাশি চিফ রিপোর্টার ও বিশেষ প্রতিনিধি হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।

সাহিত্যিক হিসেবেও মোস্তফা কামাল প্রতিষ্ঠিত। তাঁর প্রকাশিত বইয়ের সংখ্যা ১০৫টি। তার সাড়াজাগানো উপন্যাস, ‘অগ্নিকন্যা’, ‘অগ্নিপুরুষ’, ‘অগ্নিমানুষ’, ‘জননী’, ‘জনক জননীর গল্প’, ‘পারমিতাকে শুধু বাঁচাতে চেয়েছি’, ‘জিনাত সুন্দরী ও মন্ত্রীকাহিনী’, ‘হ্যালো কর্নেল’ প্রভৃতি। এ পর্যন্ত প্রকাশিত বইয়ের সংখ্যা ১০৫টি। কলকাতা থেকে সাহিত্যম প্রকাশ করেছে দুটি বই। এ ছাড়াও ভারতের নোশন প্রেস থেকে বেরিয়েছে অনুবাদ উপন্যাস ‘থ্রি নভেলস’ ও লন্ডনের অলিম্পিয়া প্রকাশনী থেকে বেরিয়েছে অনুবাদ উপন্যাস ‘দ্য মাদার’।

মোস্তফা কামাল ১৯৮৪ সালে লেখালেখি শুরু করেন। ১৯৮৫ সালে বরিশাল থেকে প্রকাশিত সাপ্তাহিক বিপ্লবী বাংলাদেশ পত্রিকার মাধ্যমে তার সাংবাদিকতায় হাতেখড়ি। পরে তিনি দৈনিক প্রবাসী, সাপ্তাহিক বিচিত্রা, আনন্দ বিচিত্রা, সাপ্তাহিক ঢাকা, পূর্বাভাস ও রোববার পত্রিকায় লেখালেখি করেন। পেশাগত সাংবাদিক হিসেবে কাজ শুরু করেন ১৯৯১ সালে। ১৯৯৪ সালে সংবাদের যোগ দেন এবং ক‚টনৈতিক প্রতিবেদক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।

মোস্তফা কামালের জš§ বরিশালের আন্ধার মানিক গ্রামে। সেখানেই কাটে কৈশোর ও শৈশব । তারপর থেকে ঢাকায় নানা চড়াই-উৎরাইয়ের মধ্যদিয়ে এগিয়ে চলা। উচ্চশিক্ষা ইংরেজি সাহিত্য ও রাষ্ট্রবিজ্ঞানে। বিজ্ঞপ্তি।

আফগানিস্তানে যুদ্ধপরবর্তী পরিস্থিতি, নেপালে রাজতন্ত্রবিরোধী গণঅভ্যুত্থান, পাকিস্তানে বেনজীর ভুট্টো হত্যাকাণ্ড এবং শ্রীলঙ্কায় তামিল গেরিলা সংকট কভার করেন এবং অসংখ্য প্রতিবেদন ও নিবন্ধ লিখে আলোচিত হন। এ ছাড়া পেশাগত দায়িত্ব পালনের জন্য তিনি যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য, অস্ট্রেলিয়া, বেলজিয়াম, চীন, জাপান, মালয়েশিয়া, কাতার, সংযুক্ত আরব আমিরাত, সিঙ্গাপুর, থাইল্যান্ড, ভারত ও ভুটান সফর করেন। তিনি দেশে-বিদেশে সহস্রাধিক জাতীয় ও আন্তর্জাতিক সম্মেলন, সেমিনার ও কর্মশালায় অংশ নেন।

কলামিস্ট হিসেবেও রয়েছে তাঁর বিশেষ খ্যাতি। তার অবসর কাটে বই পড়ে, গান শুনে। ব্যক্তিগত জীবনে তিনি বিবাহিত ও দুই সন্তানের জনক।

এই জনপদ'র আরও সংবাদ
Bhorerkagoj