রোমান সানার কষ্ট ভোলার দিন আজ!

সোমবার, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৯

খেলা প্রতিবেদক : বিশ^ আর্চারিতে বাংলাদেশের রোমান সানা এক ঝলমলে তারার নাম। তিন দিন আগে ফিলিপাইনে ক্লাক সিটিতে অনুষ্ঠিত এশিয়া কাপ র‌্যাঙ্কিং টুর্নামেন্টে ব্যক্তিগত রিকার্ভ ইভেন্ট থেকে বাংলাদেশকে স্বর্ণ এনে দিয়েছেন রোমান সানা। এশিয়ান মঞ্চে বাংলাদেশের পতাকা সবার ওপরে তুলে ধরতে ২৪ বছর বয়সী খুলনার এ তরুণকে হারাতে হয়েছে চীনের শি ঝেনকিকে। বিশ^ আর্চারির ওয়েবসাইট যাকে বলছে ক্রীড়াক্ষেত্রে বাংলাদেশের সেরা আন্তর্জাতিক সাফল্য।

ব্যক্তিগত ইভেন্টে স্বর্ণ জয়ের পর দলীয় ইভেন্ট থেকে রোমানের নেতৃত্বে রৌপ্যা জয় করেছে বাংলাদেশ। মিশ্র দ্বৈতেও পেয়েছেন ব্রোঞ্জ। এর আগে চলতি বছর জুনে নেদারল্যান্ডসে হুন্দাই বিশ্ব আর্চারি চ্যাম্পিয়নশিপে ছেলেদের ব্যক্তিগত রিকার্ভে ব্রোঞ্জ জয় করে হইচই ফেলে দিয়েছিলেন রোমান। কোনো খেলার বিশ্ব প্রতিযোগিতায় সেটিই ছিল বাংলাদেশের প্রথম কোনো পদক। সে সঙ্গে ২০২০ সালে অনুষ্ঠেয় টোকিও অলিম্পিকে সরাসরি খেলার যোগ্যতা অর্জন করেছেন এ আর্চার।

দেশসেরা এ আরচারের মনে সমর্থকদের ভালোবাসা না পাওয়ার কষ্ট দিনে দিনে প্রকট হচ্ছে। ক্রিকেট, ফুটবলে সাফল্য পেলে সমর্থকরা আনন্দে ফেটে পড়েন। সংশ্লিষ্ট খেলোয়াড়কে নিয়ে চারদিকে বন্দনার জোয়ার বয়ে যায়। সমর্থকরা ক্রিকেট, ফুটবল ছাড়া অন্য খেলায় বেশি মনোযোগ না দেয়ার মনোকষ্টে ভোগছেন সানা।

সমর্থকরা ইচ্ছে করলে রোমান সানার কষ্ট লাঘব করতে পারেন। এশিয়া কাপ ওয়ার্ল্ড র‌্যাঙ্কিং টুর্নামেন্টে তিন পদক জয়ী বাংলাদেশ দল আজ দুপুর ১২টা ১০ মিনিটে থাই এয়ারওয়েজ যোগে হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে অবতরণ করবে। পদকজয়ী আরচারি দলকে বাংলাদেশ আরচারি ফেডারেশন এবং মধুমতি ব্যাংক লিমিটেড হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে অভ্যর্থনা জানাবে।

সমর্থকদের ভালোবাসা নিয়ে সানা যে অভিযোগ করেছেন বিমানবন্দরে উপস্থিত হয়ে সমর্থকরা সে ঘাটতি পুষিয়ে দিতে পারেন। এ সাক্ষাতে রোমান সানা আক্ষেপ করে বলেছেন, আমার বাংলাদেশে আমার তো কোনো দামই নেই। কতগুলো দেশের কতজন খেলোয়াড়কে পেছনে ফেলে একটি পুরস্কার জিততে হয়, তা আমাদের দেশের মানুষ বোঝে না।

তারা শুধু বোঝে ক্রিকেট। ফুটবল নিয়েও অনেকের আগ্রহ আছে। কিন্তু আমাদের মতো ছোট খেলার খেলোয়াড়দের মূল্য কারো কাছে নেই। নিজের দেশে আমার কোনো দাম না থাকলেও জার্মানিতে গেলে অনেকে আমার অটোগ্রাফ নেয়। সুইজারল্যান্ডে গিয়েছিলাম অনুশীলনের জন্য। সেখানে যখন আমাকে পরিচয় করিয়ে দেয়া হয়েছে, অনেক বাচ্চা আমার অটোগ্রাফ নিতে এসেছে। বাইরের দেশের মানুষ বোঝে এশিয়ান পর্যায়ে বা বিশ^ পর্যায়ে পদক জয়ের গুরুত্ব। আমরা এক ম্যাচ হারলেই বাদ। কিন্তু ক্রিকেট বা ফুটবলে হারলেও পরবর্তী রাউন্ডে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকে। অনেকে রোমানকে সান্ত¡না দিয়ে বলেছেন, যারা দেশের জন্য সম্মান বয়ে আনেন তাদের সম্মান জানাতে কার্পণ্য করে না জাতি। তুমি এগিয়ে যাও, তোমার সাফল্য অব্যাহত রাখ, দেখবে সবাই তোমাকে নিয়ে মাতামাতি করবে।

খেলা-ধূলা'র আরও সংবাদ
Bhorerkagoj