অর্থ উপার্জনের উপায়

রবিবার, ১ সেপ্টেম্বর ২০১৯

গ্রাহক যখন আপনার পণ্য নিয়মিত কিনছে, অর্থনীতির উন্নতি হচ্ছে, সবাই বেশ আনন্দেই আছে ঠিক সে সময় অর্থ উপার্জন করাটা আপনার জন্য সহজ। কিন্তু যদি হুট করেই পরিস্থিতি বদলে যায়? ধরুন একটা ব্যবসায় বেশ কিছু টাকা ইনভেস্ট করেছেন কিন্তু সেটি বেশিদিন টিকলো না। তখন পুরো টাকাই নষ্ট হলো না? আর মানসিকভাবেও বেশ ভেঙে পড়লেন। কিন্তু এ থেকে পরিত্রাণের উপায় কী?

ব্যবসাকে সব সময় কেন্দ্রমুখী রাখুন

কখনো যদি অর্থনীতি কিছুটা চাপের মুখে পড়ে যায় মানুষ খুব স্বাভাবিকভাবেই উদ্বিগ্ন হয়ে যায়। আর এই উদ্বিগ্নতার মুখে পড়ে ছেড়ে দেয় ব্যবসা। ব্যবসা আসলে সে সময়ে টিকে থাকে যখন কঠিন পরিস্থিতির চাপে পড়েও আশেপাশের মানুষকে নিয়েই ব্যবসা চালানো হয়। প্রথমেই নজর রাখুন ঠিক আপনার সামনের ঘরে কী ঘটছে। অর্থাৎ খেয়াল রাখুন গ্রাহকদের চাহিদা সম্পর্কে। গ্রাহকদের চাহিদা প্রতিনিয়ত পরিবর্তন হয়। কিন্তু এর মানে এই নয় যে আপনি আপনার পণ্য বিক্রির ভয় পেয়ে চুপচাপ বসে থাকবেন! যদি নিয়মিত তাদের চাহিদা বুঝে পণ্যের যোগান দিতে পারেন তবে তারা আপনার কাছে অবশ্যই আসবে পণ্য কিনতে, যদি তার আর্থিক সমস্যা থাকে তবুও। স্বাভাবিকতা আর স্থায়িত্ব বজায় রেখে পণ্য বেচাকেনা করুন। মানুষ যখন আর্থিক অবস্থা নিয়ে কঠিন সময় পার করে তখন এই বিষয়টি ভাবনায় রাখা আরো জরুরি। মনে রাখবেন, আপনার কোম্পানি কেন টিকে আছে, সেই বিষয়ের উপর জোর দিলে ব্যবসা দ্রুত বৃদ্ধি পাবে।

চেষ্টাকে বাস্তবে পরিণত করুন

কোম্পানি তখনই টিকে যায় যখন তারা পরিবর্তনকে মেনে নিতে শিখে যায়। যত বেশি কাস্টমারদের চাহিদা সম্পর্কে জানা যাবে কোম্পানি তত উন্নতি লাভ করবে। যদি এমন হয়, পরিবর্তনের সঙ্গে তাল মিলিয়ে আপনি সেভাবে চলতে পারছেন না তবে সেই শুরুটা করুন আজ থেকেই। কারণ যদি অবস্থা বেশি কঠিন হয়ে যায়, ব্যবসাও ধরে রাখা কঠিন হয়ে যাবে। ব্যবসার প্রতিটি বিষয় নিয়ে আবার পর্যালোচনা করুন। ব্যবসার যে অংশ সেটি নিয়ে কয়েকবার আলোচনা, পর্যালোচনার পর সিদ্ধান্ত নিন, ঠিক কোন কোন জায়গায় আপনার পরিবর্তন দরকার। ওয়্যারহাউজ সলিউশন, বিক্রির মাধ্যম, বোনাস দেয়ার পদ্ধতি, পণ্য-সেবা যে কোনো কিছুরই পরিবর্তন করানো প্রয়োজনীয় হয়ে উঠতে পারে।

প্রতিদ্ব›দ্বীর গ্রাহক নিজের করে নেয়া

সহজ ভাষায় বললে প্রতিদ্ব›দ্বীর গ্রাহক চুরি করে ফেলুন! অবাক হচ্ছেন? কথাটা তবে ভেঙে বলা যাক। মানুষ প্রতিনিয়ত পরিবর্তনশীল। আর তাই প্রতিনিয়ত বদলায় তাদের চাহিদাও। ধরুন একজন পাঁচ বছর একই ব্র্যান্ডের শ্যাম্পু ব্যবহার করেছেন। কিন্তু এর মাঝেই নতুন ব্র্যান্ডের বিজ্ঞাপন অনুযায়ী চুল শক্ত, মজবুত আর বড় হওয়ার উপায় দেখে তিনি সেই নতুন ব্র্যান্ডের শ্যাম্পুই ব্যবহার শুরু করলেন। এজন্য গ্রাহকদের চাহিদা সব সময় মাথায় রাখতে হবে। নাহলে তারা অন্য কারো চটকদার বিজ্ঞাপনে আকৃষ্ট হয়ে চলে যাবে। আর এটি নিশ্চয়ই ব্যবসার জন্য খুব ফলপ্রসূ হবে না। শক্ত অবস্থানে থাকা কোম্পানিগুলো সব সময় গ্রাহকদের চাহিদা নিয়ে কাজ করে। এক্ষেত্রে শক্ত অবস্থান তৈরি করা প্রয়োজন। বলতে গেলে গ্রাহক যেন অন্য কারো দুয়ারে না যায়, অন্যের কাছ থেকে তাদের নিয়ে আসুন।

ফ্যাশন (ট্যাবলয়েড)'র আরও সংবাদ
Bhorerkagoj