প্রিপেইড মিটার স্থাপনের প্রতিবাদে স্মারকলিপি

বৃহস্পতিবার, ১৩ জুন ২০১৯

কাগজ প্রতিবেদক, গাজীপুর : জেলায় পল্লীবিদ্যুতের প্রিপেইড মিটার স্থাপনের প্রতিবাদে স্মারকলিপি দেয়া হয়েছে। গাজীপুর নাগরিক ফোরামের উদ্যোগে ৪টি দাবিতে গত মঙ্গলবার জেলা প্রশাসকের কাছে এ স্মারকলিপি দেয়া হয়। দাবিগুলো হলো- ১৫ দিনের মধ্যে প্রিপেইড মিটার তুলে নেয়া, প্রিপেইড মিটার চলমান থাকা অবস্থায় যত টাকা গ্রাহকদের বেশি খরচ হয়েছে তা ফেরত দেয়া, পল্লীবিদ্যুতের গ্রাহকরাই যদি সমিতির মালিক হয় তবে কোনো কিছু চাপিয়ে দেয়ার আগে গ্রাহকদের সঙ্গে মতবিনিময় করা, আগামীতে পবিস কোনো সেবা চালু করার আগে অবশ্যই গ্রাহকদের সঙ্গে আলোচনা করে তাদের সিদ্ধান্ত নেয়া।

গাজীপুর নাগরিক ফোরামের আহ্বায়ক এডভোকেট জালাল উদ্দিন জানান, গাজীপুর পল্লীবিদ্যুৎ সমিতি-১ এর আওতাধীন গ্রাহকদের সম্প্রতি প্রিপেইড মিটার স্থাপন কার্যক্রম শুরু করেছে। প্রথম ধাপে অনেকেই প্রিপেইড মিটার পেয়েছে। আগে স্থাপিত ডিজিটাল মিটার নিয়েই যেখানে অভিযোগের অন্ত ছিল না সেই অভিযোগের সমাধান না করে কোনো পূর্বপ্রস্তুতি ছাড়াই প্রিপেইড মিটার স্থাপন কার্যক্রম চলছে। বর্তমান প্রিপেইড মিটার আগের মিটারের চেয়ে প্রায় আড়াই গুণ বেশি বিল নেয়া হচ্ছে। কারো আগের বিল যদি ১১০০ টাকা হতো এখন প্রিপেইড মিটারে বিল আসছে ২৫০০ টাকা। এ ছাড়া মিটার ভাড়া আগের চেয়ে চারগুণ, বিদ্যুৎ লাইন বন্ধ থাকলেও মিটার থেকে টাকা কাটা যায়। এ রকম অসংখ্য অভিযোগ রয়েছে পল্লীবিদ্যুতের এই প্রিপেইড মিটারের বিরুদ্ধে। গ্রাহকরা আগের ডিজিটাল মিটারেই স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করছি। জেলা প্রশাসকের কাছে প্রিপেইড মিটার সংক্রান্ত বিড়ম্বনার আশু সমাধানের জন্য স্মারকলিপি দেয়া হয়েছে। এ সময় গাজীপুর নাগরিক ফোরামের যুগ্ম আহ্বায়ক মো. মনির হোসেন, সদস্য সচিব এ এন এম মুনীর হোসাইন মোল্লাসহ প্রায় শতাধিক গ্রাহক উপস্থিত ছিলেন।

সারাদেশ'র আরও সংবাদ
Bhorerkagoj