পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ৪

বুধবার, ১২ জুন ২০১৯

সারাদেশ ডেস্ক : দেশের বিভিন্ন স্থানে সড়ক দুর্ঘটনায় চারজন নিহত হয়েছেন। এর মধ্যে বগুড়ার কাহালুতে মোটরসাইকেল চালক, নাটোরের বড়াইগ্রামে ভ্যানচালক এবং সৈয়দপুরে ২ জন নিহত হয়েছেন। আমাদের প্রতিনিধিদের পাঠানো খবর-

কাহালু (বগুড়া) : বগুড়া-নওগাঁ মহাসড়কের কাহালুর বারমাইল এলাকায় বগুড়াগামী একটি ট্রাকের (ঢাকা মেট্রো-ট-১৪-৬৯০৬) ধাক্কায় আলম শেখ (৩৭) নামে এক মোটরসাইকেল চালক নিহত হয়েছেন। নিহত আলম শেখ কাহালু উপজেলার বীরকেদার ইউনিয়নের চকবন্যা গ্রামের মৃত সফির উদ্দিনের ছেলে। কাহালু থানা পুলিশ ট্রাকটি আটক করলেও চালক ও হেলপার পালিয়ে গেছে। কাহালু থানার এসআই ডেভিড হিমাদ্রী বর্মা ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। বড়াইগ্রাম (নাটোর) : বড়াইগ্রামে দ্রুতগামী পিকআপের ধাক্কায় দেওয়ান আলী (৫৫) নামে ব্যাটারিচালিত অটোভ্যানের চালক নিহত ও আরো তিন যাত্রী আহত হয়েছেন। গত সোমবার সকালে নাটোর-ঢাকা মহাসড়কের আহম্মেদপুর ব্রিজের পশ্চিম পাশে এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহত দেওয়ান আলী জেলার সদর উপজেলার মধ্য আওরাইল গ্রামের শিরু পাগলার ছেলে। ঝলমলিয়া হাইওয়ে ফাঁড়ির ইনচার্জ মোজাম্মেল হক জানান, সোমবার সকালে সবজি বিক্রি করতে আহম্মেদপুর বাজারে যাওয়ার পথে ব্রিজের পাশে একটি পিকআপ (রাজ মেট্রো ১১-০১৮৫) অটোভ্যানটিকে ধাক্কা দেয়। এ সময় মহাসড়কে ছিটকে পড়ে চালক দেওয়ান আলী ঘটনাস্থলেই নিহত এবং ভ্যানের যাত্রী একই গ্রামের আলাউদ্দিন, মকবুল হোসেন ও কাজী মোল্লা গুরুতর আহত হন। পরে স্থানীয়রা আহতদের উদ্ধার করে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করেছে।

সৈয়দপুর (নীলফামারী) : নীলফামারীর সৈয়দপুরে সড়ক দুর্ঘটনার ২ জন ব্যাটারিচালিত রিকশা-ভ্যান আরোহী নিহত হয়েছেন। গত রবিবার রাত আনুমানিক সোয়া ১২টায় সৈয়দপুর-নীলফামারী সড়কের ঢেলাপীর ও ওয়াপদা মোড়ের মধ্যবর্তী স্থানে এ ঘটনাটি ঘটে। নিহতরা হলেন- ঢেলাপীর উত্তরা আবাসনের মো. নান্নুর ছেলে মো. মোহন (১৬) ও নীলফামারী সদর উপজেলার সংগলশী ইউনিয়নের শিমুলতলীর মৃত. হেবরু মামুদের ছেলে মো. শফিকুল ইসলাম (৩০)। এতে রিকশার চালক মো. পারভেজ (২৮) গুরুতর আহত হন। তিনি ঢেলাপীর উত্তরা আবাসন এলাকার মো. আনোয়ার হোসেনের ছেলে। সৈয়দপুর থানার ওসি (তদন্ত) মো. আবুল হাসনাত দুর্ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, এ ঘটনায় নাবিল পরিবহনের নৈশকোচটিকে আটক করা হয়েছে। তবে এর চালক ও তার সহকারী পালিয়ে গেছে।

সারাদেশ'র আরও সংবাদ
Bhorerkagoj