বাংলাদেশে মুক্ত সফটওয়্যার নিয়ে রেড হ্যাট

রবিবার, ২৮ এপ্রিল ২০১৯

বিশ্বের শীর্ষস্থানীয় মুক্ত সফটওয়্যার কোম্পানি রেড হ্যাট বাংলাদেশে তাদের ব্যবসা সম্প্রসারণ করতে চায়। ব্যাংক, বীমা, আর্থিক প্রতিষ্ঠান, সরকারি সংস্থা এবং টেলিকম খাতের প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে অংশীদারিত্বের ভিত্তিতে কাজ করার লক্ষ্য তারা নির্ধারণ করেছে। তাদের সেবা দেশের ডিজিটাল রূপান্তর প্রক্রিয়াকে নিরাপদ ও শক্তিশালী করবে বলে মনে করছে বহুজাতিক আমেরিকান কোম্পানিটি।

রাজধানীর ওয়েস্টিন হোটেলে গত বুধবার ২৪ এপ্রিল সাংবাদিক সম্মেলনে রেড হ্যাট ইন্ডিয়া ও সাউথ এশিয়ার জেষ্ঠ্য কর্মকর্তারা এ তথ্য জানান। একই দিন ওই হোটেলে আয়োজিত রেড হ্যাট ফোরামে দেশে ব্যবসা পরিচালনাকারী বিভিন্ন সংস্থা-কোম্পানির সঙ্গে তারা আলোচনা করেন।

সাংবাদিক সম্মেলনে রেড হ্যাট ইন্ডিয়া ও সাউথ এশিয়ার পার্টনার, অ্যালায়েন্সস অ্যান্ড কমার্শিয়াল সেলস পরিচালক নিরাজ ভাটিয়া, সল্যুশন আর্কিটেকচার পরিচালক অমিতা রায় এবং হেড অব সেলস স্টেট গভর্নমেন্ট অ্যান্ড কমার্শিয়াল বিজনেস পলাশেন্দু ভট্টাচার্য্য বক্তব্য রাখেন। তারা বলেন, আগামী কয়েক বছরের মধ্যে বাংলাদেশ অন্যতম শীর্ষ সফটওয়্যার ব্যবহারকারী দেশে পরিণত হবে। এ প্রযুক্তিগত রূপান্তর প্রক্রিয়াকে নিরাপদ ও টেকসই করতে মুক্ত সফটওয়্যারের যথাযথ ব্যবহার প্রয়োজন। রেড হ্যাট অংশীজনদের নিয়ে তা নিশ্চিত করতে কাজ করবে।

নিরাজ ভাটিয়া বলেন, ওপেন সোর্স বাংলাদেশের ডিজিটাল অর্থনীতিতে উদ্ভাবনী গতি দিবে। গত কয়েক বছরে দেশে ক্লাউড কম্পিউটিং জনপ্রিয় হচ্ছে। মানুষ এবং ব্যবসা প্রতিষ্ঠান এটি গ্রহণ করছে। রেড হ্যাট স্থানীয় ব্যবসায় উন্মুক্ত হাইব্রিড ক্লাউড সমাধান আনতে উদ্ভাবনমূলক কাজ করবে। ব্যবসার সম্প্রসারণে এটি আধুনিকতম সমাধান আনছে। অমিতা রায় বলেন, বিশ্বজুড়ে ডিজিটাল বিচ্যুতির বিপরীতে ভালো সমাধান নিয়ে এসেছে ওপেন সোর্স সল্যুশন। প্রযুক্তির পরিবর্তনের সঙ্গে এটি দ্রুতই পরিবর্তিত হয় বলে এর ব্যবহারও সহজ এবং নিরাপদ। গ্রাহকের চাহিদা অনুযায়ী এটি নতুন বৈশিষ্ট্য পরিমাপ করতে এবং সংশোধন করতে সক্ষম। অপেক্ষাকৃত কম অবকাঠামো এবং সফটওয়্যার খরচ কম হওয়ার কারণে ওপেন সোর্স ব্যবসা প্রতিষ্ঠান এবং ডেভেলপারদের উন্মুক্ত, নমনীয় এবং সাশ্রয়ী ব্যবস্থাপনায় কাজ সম্পন্ন করার সুযোগ দেয়। অন্য সফটওয়্যারের চেয়ে এ মুক্ত সল্যুশনের নিয়ন্ত্রণও সহজ। আইটি অবকাঠামো এবং অ্যাপ্লিকেশন নির্মাণে ভেন্ডরদের সঙ্গে দীর্ঘসূত্রতা এবং সময়ক্ষেপন রোধ করে রেড হ্যাটের ওপেন সোর্স সল্যুশন। পলাশেন্দু ভট্টাচার্য্য বলেন, ক্লাউড কম্পিউটিং, কন্টেইনারস, মোবাইল, কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা, মেশিন লার্নিংয়ের মত উদ্ভাবনগুলোর মূলেও রয়েছে ওপেন সোর্স সল্যুশন। এয়ারলাইনস, কমার্শিয়াল ব্যাংক এবং টেলিকম খাতের বিভিন্ন কোম্পানি রেড হ্যাটের এ সেবা গ্রহণ করছে।

:: ডটনেট ডেস্ক

ডট নেট'র আরও সংবাদ
Bhorerkagoj