ধুনটে শেষ হলো আঞ্চলিক বিশ্ব ইজতেমা : আখেরি মোনাজাতে বিশ্ব মুসলিম উম্মাহর শান্তি ও সমৃদ্ধি কামনা

রবিবার, ১৩ জানুয়ারি ২০১৯

আমিনুল ইসলাম শ্রাবণ, ধুনট (বগুড়া) থেকে : উপজেলায় আখেরি মোনাজাতের মধ্য দিয়ে শেষ হলো ৩ দিনব্যাপী আঞ্চলিক বিশ্ব ইজতেমা। গতকাল শনিবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে আখেরি মোনাজাতে বিশ্ব মুসলিম উম্মাহর সুখ-শান্তি ও সমৃদ্ধি কামনা করা হয়। এ সময় মুসল্লিদের আমিন আমিন ধ্বনিতে মুখরিত হয়ে ওঠে ইজতেমা ময়দান।

ইজতেমা আয়োজক কমিটি জানায়, দাওয়াতে তাবলিগের মেহনত বাড়ানোর জন্য উপজেলায় চার দশক আগে থেকে আঞ্চলিক ইজতেমা হয়ে আসছিল। এর ধারাবাহিকতায় এবারো আঞ্চলিক ইজতেমা হচ্ছে। তবে নিজেদের বিভক্তির কারণে এ বছর দুটি ইজতেমা হচ্ছে। এর মধ্যে প্রথমে ধুনট পৌর এলাকার পূর্ব ভরনশাহী গ্রামে ইজতেমা অনুষ্ঠিত হলো।

গত বৃহস্পতিবার বাদ ফজর আম বয়ানের মধ্য দিয়ে পূর্ব ভরনশাহী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সামনে ৩ দিনব্যাপী ইজতেমার কার্যক্রম শুরু হয়। ইজতেমায় প্রতিদিন ফজর, জোহর, আসর ও বাদ মাগরিব তাবলিগের মুরব্বিরা বয়ান করেছেন। এ ইজতেমায় বিদেশি ৬টি দেশের মুসল্লিরাও অংশ নেন। শুক্রবার ইজতেমা ময়দানে বৃহৎ জুমার নামাজের জামাত অনুষ্ঠিত হয়। শনিবার বাদ ফজর কাকরাইলের মুরব্বি আব্দুর রহিম বয়ান পেশ করেন। এ দিন ভোর থেকে ইজতেমা ময়দানে আখেরি মোনাজাতে অংশ নিতে ধর্মপ্রাণ মুসল্লিরা আসতে থাকেন। সকাল সাড়ে ১০টার দিকে কাকরাইলের মুুরব্বি মাওলানা আল ফারুক আখেরি মোনাজাত পরিচালনা করেন। প্রায় ৩০ মিনিটব্যাপী আখেরি মোনাজাতে বিশ্ব মুসলিম উম্মাহর সুখ-শান্তি ও সমৃদ্ধি কামনা করা হয়। আখেরি মোনাজাতে সংসদ সদস্য আলহাজ হাবিবর রহমানসহ জনপ্রতিনিধি, রাজনৈতিক নেতা, প্রশাসনিক কর্মকর্তারা অংশ নেন।

এদিকে ৩ দিনে ইজতেমা ময়দানে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর কয়েকটি টিম নিñিদ্র নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে দায়িত্ব পালন করে।

ধুনট বাজার কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের পেশ ইমাম হাফেজ আরিফুল্লাহ জানান, আল্লাহর রহমতে আঞ্চলিক বিশ্ব ইজতেমা শান্তিপূর্ণ পরিবেশে সম্পন্ন হয়েছে। ধুনট সদরে প্রথমবার এ ইজতেমার আয়োজন ছিল। তারপরও বিপুল সংখ্যক মুসল্লি অংশ নেন। ইজতেমা ময়দান থেকে কয়েকটি জামাত তৈরি হয়েছে। জামাতগুলো দ্বীনি দাওয়াতের মেহনতে বেরিয়েছে।

প্রসঙ্গত, আগামী ১৭, ১৮ ও ১৯ জানুয়ারি ধুনট উপজেলার সরুগ্রামে দ্বিতীয় দফায় আঞ্চলিক বিশ্ব ইজতেমা অনুষ্ঠিত হবে।

এই জনপদ'র আরও সংবাদ
Bhorerkagoj