হারে শুরু কোহলিদের

রবিবার, ১৩ জানুয়ারি ২০১৯

খেলা ডেস্ক : ভারতের বিপক্ষে ঘরের মাঠে টেস্ট সিরিজ খুইয়েছে অস্ট্রেলিয়া। তবে রঙিন পোশাকের ম্যাচে ঘুরে দাঁড়িয়েছে স্বাগতিকরা। গতকাল তিন ম্যাচ সিরিজের প্রথম ওয়ানডেতে কোহলিদের বিপক্ষে ৩৪ রানে জিতেছে অজিরা। এর ফলে ১-০ ব্যবধানে এগিয়ে গেল অ্যারন ফিঞ্চরা।

গতকাল সিডনিতে টসে জিতে প্রথমে ব্যাটিং করার সিদ্ধান্ত নেন স্বাগতিক অধিনায়ক। ব্যাট করতে নেমে শুরুটা তেমন ভালো হয়নি অজিদের। দলীয় ৪১ রানে ২ উইকেট হারানোর পর তৃতীয় উইকেটে হাল ধরেন দুই বাঁ-হাতি টপঅর্ডার ব্যাটসম্যান শন মার্শ এবং উসমান খাজা। দায়িত্বশীল ব্যাটিংয়ে দুজন মিলে গড়েন ৯২ রানের জুটি। দুজনই পূরণ করেন নিজেদের ব্যক্তিগত অর্ধশতক। মার্শ ৭০ বলে ৪ চারের মারে ৫৪ এবং খাজা ৮১ বলে ৬ চারের মারে ৫৯ রান করেন। দলীয় ১৮৭ রানের মাথায় খাজা ফিরে যাওয়ার পর হাল ধরেন মার্কাস স্টোইনিস এবং পিটার হ্যান্ডসকম্ব।

এ দুই ব্যাটসম্যান ১২.৩ ওভারে ১০১ রান যোগ করেন দলের স্কোরে। হ্যান্ডসকম্ব করেন ৭৩ রান। এ রান করতে ৬১ বলে ৬ চার এবং ২ ছক্কার সাহায্য নেন। তিন রানের জন্য হাফসেঞ্চুরি করা হয়নি স্টোইনিসের। ৪১ বলে ২টি করে চার-ছক্কার মারে ৪৭ রান করেন তিনি। এ ছাড়া গেøন ম্যাক্সওয়েল ৫ বলে ১১ রান করেন। নির্ধারিত ৫০ ওভারে ৫ উইকেটে ২৮৮ রানের সংগ্রহ পায় অস্ট্রেলিয়া। ভারতের হয়ে বল হাতে ২টি করে উইকেট নিয়েছেন ভুবনেশ^র ও কুলদিপ যাদব।

অস্ট্রেলিয়ার ২৮৯ রানের জবাবে ভারতের শুরুটা হয়েছিল দুঃস্বপ্নের মতো। স্বাগতিকদের অভিষিক্ত বোলার জ্যাসন বেহরেনডর্ফ ও নবীন ঝাই রিচার্ডসন মিলে কাঁপিয়ে দেন ভারতের টপঅর্ডার। অভিষেকে প্রথম ওভারে কোনো রান না দিয়েই ধাওয়ানকে এলবিডব্লিুউ করেন বেহরেনডর্ফ। পরের ওভারও ছিল মেডেন। ভালো পেসের সঙ্গে দুর্দান্ত আউট সুইংয়ের প্রদর্শনীতে রোহিতকে কোনো রান পেতে দেননি রিচার্ডসন। এই আউট সুইং দিয়েই ফাঁদে ফেলেন বিরাট কোহলিকে। পুরোপুরি অফ সাইডের ফিল্ড সেটিংয়ে পায়ের উপর বল পেয়ে দুবার ভাবেননি কোহলি। তবে ফ্লিক করতে গিয়ে তুলে দেন ক্যাচ। এক বল পরে আম্বাতি রাইডু শুধু এলবিডব্লিুউ হন না, রিভিউটাও নষ্ট করে দেন। চার ওভারের মধ্যে ৪ রানে ৩ উইকেট হারায় ভারত। এরপর রোহিত শর্মা ও মহেন্দ্র সিং ধোনি সেই ধাক্কা সামলে প্রতিরোধ গড়ে তোলেন। এই দুই ব্যাটসম্যান ১৩৭ রানের জুটি গড়েন। এ ছাড়াও এই ম্যাচে ধোনি পূর্ণ করেছেন ভারতের পক্ষে নিজের দশ হাজার রান। এমন উপলক্ষ পেয়ে ধোনি জ্বলে ওঠার চেষ্টা করেন। কিন্তু তার প্রতিরোধ থামিয়ে দেন বেহরেনডর্ফ। ধোনির ৫১ রানের ইনিংসটি ছিল ৯৬ বলে করা। এরপর একাই লড়াই চালিয়ে যান ওপেনার রোহিত শর্মা। ক্যারিয়ারের ২২তম ওয়ানডে সেঞ্চুরি করেছেন তিনি। অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে এটা রোহিতের সপ্তম সেঞ্চুরি, অস্ট্রেলিয়াতে চতুর্থ। অজিদের মাঠে তাদের বিপক্ষে ভারতের কেউ এত সেঞ্চুরি করতে পারেননি। অজিদের বিপক্ষে টেন্ডুলকারকে ৯ সেঞ্চুরি করতে ৭০ ইনিংস খেলতে হয়েছে। আর কোহলির আছে ২৭ ইনিংসে ৫টি সেঞ্চুরি। রোহিত ৪৬তম ওভারে মার্কাস স্টোইনিসকে তুলে মারতে গিয়ে ব্যক্তিগত ১৩৩ রানে আউট হন এই ওপেনার। ১২৯ বলে করা তার ইনিংসটি ছিল ৬টি ছক্কা ও ১০টি চারে সাজানো।

অজি বোলারদের নিয়ন্ত্রিত বোলিংয়ে আর এগুতে পারেনি ভারত। ফলে রিকোয়ার্ড রান রেট বাড়তে থাকে হু-হু করে, যা আর সামাল দিতে পারেনি কোহলির বাহিনী। নির্ধারিত ৫০ ওভারে ৯ উইকেট হারিয়ে ২৫৪ রান সংগ্রহ করে সফরকারীরা। ২৬ রান খরচায় ৪টি উইকেট শিকার করে ম্যাচসেরা হন রিচার্ডসন।

খেলা-ধূলা'র আরও সংবাদ
Bhorerkagoj