জীবপ্রযুক্তি মেলায় ইয়াফেস ওসমান : বিজ্ঞান ও জীবপ্রযুক্তির গবেষণা বাড়াতে হবে

শনিবার, ৮ সেপ্টেম্বর ২০১৮

কাগজ প্রতিবেদক : বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়কমন্ত্রী ইয়াফেস ওসমান বলেছেন, টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা (এসডিজি) অর্জন এবং রূপকল্প ২০২১ ও ২০৪১ বাস্তবায়নের মাধ্যমে উন্নত বাংলাদেশ বিনির্মাণে দেশের জীবপ্রযুক্তিবিদদের সক্রিয় ভূমিকা পালন করতে হবে। এ জন্য বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির গবেষণা, উন্নয়ন এবং জীবপ্রযুক্তির গবেষণা বাড়াতে হবে। চিকিৎসা, শিল্প ও কৃষি ক্ষেত্রের উন্নয়ন এবং জলবায়ু পরিবর্তনের বিরূপ প্রভাব মোকাবেলাতেও জীবপ্রযুক্তিকে কাজে লাগাতে হবে। তবেই বাংলাদেশ ২০৪১ সালের মধ্যে উন্নত দেশে পরিণত হবে।

গতকাল শুক্রবার বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান নভোথিয়েটারে দুই দিনব্যাপী ‘জাতীয় জীবপ্রযুক্তি মেলা ২০১৮’-এর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব নজিবুর রহমান, পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রণালয়ের সচিব আবদুল্লাহ আল মোহসীন চৌধুরী প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

মেলার এবারের প্রতিপাদ্য বিষয় হচ্ছে ‘উন্নয়নের অগ্রযাত্রায় জীবপ্রযুক্তি’। জীবপ্রযুক্তি বিষয়ক শিক্ষা, গবেষণা ও জীবপ্রযুক্তি ভিত্তিক ব্যবসা-বাণিজ্য সম্প্রসারণ এবং জীবপ্রযুক্তি বিষয়ে জনসচেতনতা গড়ে তোলার উদ্দেশ্যে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের উদ্যোগে এবং জীবপ্রযুক্তি বিষয়ক বিশেষায়িত গবেষণা প্রতিষ্ঠান ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অব বায়োটেকনোলজির (এনআইবি) ব্যবস্থাপনায় এই মেলার আয়োজন করা হয়। মেলায় বাংলাদেশের ২৪টি সরকারি ও বেসরকারি বিশ^বিদ্যালয়ের প্রায় ১ হাজার ২০০ ছাত্রছাত্রীসহ জীবপ্রযুক্তি সংশ্লিষ্ট গবেষণা প্রতিষ্ঠান, স্কুল, কলেজ, শিল্প, ব্যবসা ও সেবা প্রতিষ্ঠান, সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয় এবং স্বশিক্ষিত গবেষকরা ৭০টি স্টলে তাদের কার্যক্রম প্রদর্শন করেন।

উদ্বোধনী বক্তব্যে মন্ত্রী বলেন, জীবপ্রযুক্তিসহ সবক্ষেত্রে গবেষণা কর্মের ওপর বর্তমান সরকার অত্যন্ত গুরুত্ব দিয়ে কাজ করছে। সরকারের লক্ষ্য পূরণে নতুন নতুন জীবপ্রযুক্তির উদ্ভাবন এবং প্রয়োগের লক্ষ্যে জীবপ্রযুক্তিবিদদের এগিয়ে আসতে হবে।

তিনি বলেন, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির গবেষণা, উন্নয়ন এবং জীবপ্রযুক্তির গবেষণা বাড়াতে হবে। চিকিৎসা, শিল্প ও কৃষি ক্ষেত্রের উন্নয়ন এবং জলবায়ু পরিবর্তনের বিরূপ প্রভাব মোকাবেলাতেও জীবপ্রযুক্তিকে কাজে লাগাতে হবে। এসব ক্ষেত্রে সফল হতে পারলে বাংলাদেশ ২০৪১ সালের মধ্যে উন্নত দেশে পরিণত হবে।

বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের সচিব আনোয়ার হোসেন বলেন, দেশবাসীর মধ্যে জীবপ্রযুক্তির ধারণার প্রসার ঘটাতে হবে। এজন্য এই মেলা বিশেষ ভূমিকা রাখবে। এই মেলা নবীন শিক্ষার্থী, বিজ্ঞানী, উদ্যোক্তাদের জন্য এক নবদিগন্তের উন্মোচন করবে।

এই জনপদ'র আরও সংবাদ
Bhorerkagoj