এবার আইপিএলে যা কিছু নতুন : মুবাশি^রুল বারী রাফিন

মঙ্গলবার, ১০ এপ্রিল ২০১৮

টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটের মহোৎসবের শিরোপার জন্য শুরু হয়েছে ৫১ দিনের লড়াই। ভারতের ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়ামে শনিবার চেন্নাই সুপার কিংস ও আইপিএলের বর্তমান চ্যাম্পিয়ন মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স পরস্পরের মুখোমুখি হবার আগে শুরুটা রঙিন করতে বর্ণিল মঞ্চ মাতালেন বলিউডের জনপ্রিয় নায়ক-নায়িকারা। জমকালো আয়োজনে উঠেছে আইপিএলের ১১তম আসরের পর্দা। টি-টোয়েন্টির এই আসর তাদের প্রচার ও উত্তেজনার পারদ এতটা উঁচুতে নিয়ে গেছে যে, বিশ্বের সব ক্রিকেটারের চরম আকাক্সিক্ষত এক প্রতিযোগিতায় রূপ নিয়েছে আইপিএল।

ভারতের ঘরোয়া টি-টোয়েন্টি আসর ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগে শুধু চার-ছক্কার ঝড়ই নয়, নিত্যনতুন চমকও উপহার দিয়ে যাচ্ছে। প্রথমবারের মতো ডিসিশন রিভিউ সিস্টেম (ডিআরএস) চালু করা হয়েছে এবার, থাকছে ইউরোপিয়ান ক্লাব ফুটবলের আদলে মধ্যবর্তী দলবদল। আইপিএলের চলতি আসরে নতুন যা যা থাকছে :

মধ্যবর্তী দলবদল : আইপিএলে এবারই প্রথমবারের মতো চালু হবে মধ্যবর্তী দলবদল। টুর্নামেন্টের মাঝপথে পাঁচ দিনের একটি উইন্ডো (দলবদলের সময়) খোলা হবে। এ সময় শুধু আনক্যাপড (ভারতের জাতীয় দলের বাইরে) খেলোয়াড়েরা শর্ত সাপেক্ষে দলবদল করতে পারবে। শর্ত হচ্ছে টুর্নামেন্টের মাঝপথ পর্যন্ত দুটি ম্যাচের বেশি খেলেননি, এমন ক্রিকেটারেরাই শুধু দলবদল করতে পারবে। আইপিএলের ২৮ নম্বর ম্যাচ থেকে ৪২ নম্বর ম্যাচের মাঝে পাঁচ দিন দলবদল চালু থাকবে। মাহেলা জয়াবর্ধনের মতো সাবেকরা থেকে রোহিত শর্মার মতো বর্তমান তারকারা এ নিয়মটির ভূয়সী প্রশংসা করেছেন।

ডিআরএস : আম্পায়ার ডিসিশন রিভিউ সিস্টেম (ইউডিআরআস) বা সংক্ষেপে ডিআরএস। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অনেক আগে থেকেই এর ব্যবহার হয়ে আসছিল। গত বছর থেকে টি টোয়েন্টিতে ডিআরএস চালু করে আইসিসি। এবার প্রথমবারের মতো আইপিএলেও ডিআরএস সিস্টেম চালু করলো ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড (বিসিসিআই)। কাকতালীয়ভাবে আইপিএলের প্রথম ম্যাচে প্রথম আউটটিও হলো ডিআরএসের মাধ্যমে। বর্তমান চ্যাম্পিয়ন মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সে অভিষিক্ত ক্যারিবিয়ান ব্যাটসম্যান এভিন লুইসের দুর্ভাগ্য! চেন্নাই সুপার কিংসের উদীয়মান বোলার দীপক চাহারের দারুণ ইনসুইংগারে পরাস্ত হন লুইস। আম্পায়ারের কাছে আবদেন উঠতেই ক্রিস গ্যাফানি আঙুল তুলে দেন। এভিন লুইস এই আউটের চ্যালেঞ্জ জানান। কিন্তু দেখা যায়, বল গুড লেন্থেই বল পড়েছে। মিডল স্ট্যাম্পের ওপর বল পড়ে ইনসুইং করে চলে যায় লেগ স্ট্যাম্পের ওপর, লুইস পুরোপুরি পরাস্ত। রিভিউতে জিতলেন চাহারই, আউট হন এভিন লুইস। আইপিএলে নিজের প্রথম ম্যাচে ২ বল মোকাবেলায় কোনো রান না করেই বিদায় নেন এভিন।

যে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড ডিআরএস চালুর শুরুর দিকে এই সিস্টেমের প্রবল বিরোধী ছিল। নিজেদের কোনো দ্বিপাক্ষিক সিরিজেই তারা ডিআরএস ব্যবহারের অনুমতি দিতো না, সেই ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডই প্রথমবারের মতো নিজেদের ঘরোয়া লিগে (আইপিএলে) ডিআরএসের উদ্বোধন ঘটিয়েছে। যেহেতু আগের মৌসুমে আম্পায়ারদের কিছু সিদ্ধান্ত বিতর্কের ঝড় তুলেছিল। তখন থেকেই দাবি উঠেছিল, আইপিএলের আগামী মৌসুম থেকে ডিআরএস চালু করা উচিত। বিসিসিআই তা অনুমোদন দেয়ার পর চলতি আসরেই প্রথম ডিআরএস পদ্ধতি চালু হয় আইপিএলে। সর্বাধুনিক এ প্রযুক্তিতে থাকছে হক আই সুবিধাসম্পন্ন আলট্রাএজ প্রযুক্তি এবং প্রতি সেকেন্ডে ছবির ফ্রেমসংখ্যা বাড়ানো, প্রতি ইনিংসে প্রতিটি দলের জন্য থাকছে একবার করে রিভিউ নেয়ার সুযোগ। সেইসঙ্গে তৃতীয় আম্পায়াররা পাচ্ছেন বল ট্র্যাকিং ও আলট্রাএজ পদ্ধতি ব্যবহারের সুযোগ।

নিষেধাজ্ঞা কাটিয়ে চেন্নাই ও রাজস্থানের প্রত্যাবর্তন : ম্যাচ পাতানোর অপরাধে দুই বছর নিষিদ্ধ থাকার পর এবার আইপিএলে ফিরেছে চেন্নাই সুপার কিংস ও রাজস্থান রয়্যালস। দুটি দলের এই প্রত্যাবর্তন বিশেষ করে চেন্নাইয়ে ফেরা তুমুল আগ্রহের সৃষ্টি করেছে দর্শকদের মধ্যে। প্রতি আসরেই ন্যূনতম প্লে-অফে খেলা চেন্নাইয়ের এই প্রত্যাবর্তন নিয়ে বানানো ভিডিওতে প্রেরণা বাণী দিয়েছেন দলটির অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনি। ইতোমধ্যেই তাদের থিম সং বেশ জনপ্রিয় হয়েছে। তবে এবার চেন্নাইয়ে দেখা যাবে না রবিচন্দ্রন অশ্বিনকে। এক সময় দলটির ঘরের ছেলে বনে যাওয়া অশ্বিনকে এবার কেনেনি চেন্নাই। চেন্নাই ও রাজস্থানের নতুন অধ্যায় শুরু হচ্ছে চলতি আইপিএলে।

সম্প্রচারে অভিনবত্ব : আইপিএল সম্প্রচারে অভিনব প্রযুক্তির ছোঁয়ায় এবার আইপিএলে ম্যাচগুলো দেখে টেলিভিশনের দর্শকরা আলাদা স্বাদ পাবেন। ম্যাচগুলো আরো আকর্ষণীয় করে তুলতে সর্বাধুনিক প্রযুক্তি ব্যবহার করা হবে। এ ছাড়া হটস্টার অ্যাপ ব্যবহার করে মুঠোফোনেও খেলা দেখা যাবে। স্টেডিয়ামে থাকবে ভিআরটি (ভার্চ্যুয়াল রিয়্যালিটি প্ল্যাটফর্ম) ক্যামেরা, যা মাঠের প্রতিটি কোণের ছবি ও ফুটেজ নিতে এবং প্রতি সেকেন্ডে ছবির ফ্রেমসংখ্যা বাড়াতে সক্ষম। হটস্টার অ্যাপ ব্যবহার করে ভিআরটি ক্যামেরার ভিডিও দেখতে পারবেন দর্শকরা। চাইলে ধারাভাষ্যও পাল্টে নেয়া যাবে।

যেসব চ্যানেলে দেখা যাবে আইপিএলের ম্যাচগুলো

বাংলাদেশের দর্শকরা চ্যানেল ৯-এ সরাসরি আইপিএলের ম্যাচগুলো উপভোগ করতে পারবেন। এছাড়া ভারতীয় চ্যানেলগুলোর মধ্যে রয়েছে : স্টার স্পোর্টস ১, স্টার স্পোর্টস সিলেক্ট ওয়ান, স্টার স্পোর্টস সিলেক্ট ওয়ান এইচডি, স্টার স্পোর্টস ওয়ান হিন্দি, স্টার স্পোর্টস ওয়ান এইচডি হিন্দি, স্টার স্পোর্টস ওয়ান তামিল, সুভারনা প্লাস, জলশা মুভিজ এইচডি, মা মুভিজ।

পাকিস্তান : জিও সুপার, অস্ট্রেলিয়া : ফক্স স্পোর্টস, নিউজিল্যান্ড : স্কাই স্পোর্টস, আফগানিস্তান : লেমার টিভি, যুক্তরাষ্ট্র ও কানাডা : উইলো টিভি, যুক্তরাজ্য : স্কাই স্পোর্টস, ক্যারিবিয়ান রাষ্ট্রগুলো : ফ্লো টিভি, মধ্যপ্রাচ্য ও উত্তর আফ্রিকা : বিইন স্পোর্টস, সাব সাহারান আফ্রিকা : সুপারস্পোর্টস, অনলাইন : ভারত, যুক্তরাষ্ট্র, কানাডা : হটস্টার (ঐড়ঃংঃধৎ), অস্ট্রেলিয়া, ইউরোপ, দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়া ও দক্ষিণ আমেরিকা : ইয়াপ টিভি (ণঁঢ়ঢ় ঞঠ)।

রেডিও : ক্রিকেট রেডিও : সারা বিশ্ব (ভারতীয় উপমহাদেশ ছাড়া) ৮৯.১ রেডিও ৪ এফএম, গোল্ড ১০১.৩ এফএম-ইউএই, টকস্পোর্টস : যুক্তরাজ্য। টিভি ও ডিজিটাল প্ল্যাটফর্ম মিলিয়ে এবারের আইপিএলে ৭০ কোটি দর্শক কাড়তে চায় সম্প্রচার কর্তৃপক্ষ। মোট ছয়টি ভাষায় আইপিএলের ম্যাচগুলো প্রচার করবে স্টার ইন্ডিয়া।

নতুন নেতৃত্ব : নতুন নেতৃত্ব কীভাবে দলকে সাফল্য এনে দেয়, এর সঙ্গে নিজের ভবিষ্যৎও উজ্জ্বল করেন, সেটাও দেখার সুযোগ থাকবে এবারের টুর্নামেন্টে। রবিচন্দ্রন অশ্বিন যেমন এর আগে কখনোই কোনো টি-টোয়েন্টি দলের নেতৃত্ব দেননি। ভারতের এই স্পিনার এবার কিংস ইলেভেন পাঞ্জাবের অধিনায়ক। নেতৃত্বের ভার নিয়ে অশ্বিন কেমন করেন, তা নিয়ে আগ্রহ রয়েছে দর্শকদের।

সানরাইজার্স হায়দরাবাদে যেমন কেন উইলিয়ামসন, ডেভিড ওয়ার্নার দলটির নেতৃত্বে থাকলে নিউজিল্যান্ড অধিনায়ক হয়তো একাদশেই অনেক কম সুযোগ পেতেন। কিন্তু ওয়ার্নার নিষিদ্ধ হওয়ায় কপাল খুলেছে উইলিয়ামসনের। আগে একাদশেই অনিয়মিত ছিলেন, এখন ওয়ার্নারের শূন্যতা পূরণে এক লাফে অধিনায়ক। কলকাতা নাইট রাইডার্সেও গৌতম গম্ভীরের কাছ থেকে এবার নেতৃত্বভার নিয়েছেন দিনেশ কার্তিক। আর কেকেআরকে দুবারের শিরোপা জেতানো গম্ভীর ফিরেছেন নিজের ঘর দিল্লিতে। অন্যদিকে এবারের আইপিএলে খেলছেন বাংলাদেশের দুজন ক্রিকেটার।

এরা হলেন, টাইগার অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান এবং কাটার মাস্টার মোস্তাফিজুর রহমান। আগের আসরগুলোতে কলকাতা নাইট রাইডার্সের হয়ে খেললেও এবার সাইরাইজার্স হায়দ্রাবাদের জার্সিতে খেলবেন সাকিব। আর আগের ২ আসরে সাইরাইজার্সের হয়ে খেললেও টাইগার পেসার মোস্তাফিজুর রহমান এবার খেলছেন মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের হয়ে। গতকাল শনিবার ৭ এপ্রিল জমকালো আয়োজনের মধ্য দিয়ে শুরু হয়েছে ১১তম ফ্র্যাঞ্চাইজি ভিত্তিক টি-টোয়েন্টির সবচেয়ে জলুসপূর্ণ আসর আইপিএল।

উদ্বোধনী ম্যাচে ঘরের মাঠ ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়ামে ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়ন মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স মুখোমুখি হচ্ছে আরেক জায়ান্ট চেন্নাই সুপার কিংসের। কাটার মাস্টার মোস্তাফিজুর রহমান খেলছেন মুম্বাইয়ের হয়ে। ফলে দলটিকে ঘিরে বাংলাদেশি সমর্থকদের বাড়তি একটা উত্তেজনা থাকছেই। প্রতিযোগিতাটির বর্তমান চ্যাম্পিয়নরা ২ কোটি ২০ লাখ রুপিতে দলে ভিড়িয়েছে বাংলাদেশের কাটার মাস্টারকে। আইপিএল মানেই অর্থের ছড়াছড়ি।

গ্যালারি'র আরও সংবাদ
Bhorerkagoj