কক্সবাজারে ২ লাখ ২১ হাজার ইয়াবা উদ্ধার , আটক ১৬

শনিবার, ৩ ডিসেম্বর ২০১৬

সৈয়দুল কাদের, কক্সবাজার থেকে : কক্সবাজারে বিজিবি ও কোস্টগার্ড অভিযান চালিয়ে ২ লাখ ২১ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার ও ১৬ জন পাচারকারীকে আটক করেছে।

গতকাল শুক্রবার ভোরে ও সকালে কক্সবাজারের রামুর রেঁজুখালের ব্রিজ, টেকনাফের নাইট্যংপাড়া-সংলগ্ন নাফ নদী ও সেন্টমার্টিন উপক‚লবর্তী সাগরে পৃথক অভিযান চালায় বিজিবি ও কোস্টগার্ড।

কোস্টগার্ডের টেকনাফ স্টেশন কমান্ডার লেফটেন্যান্ট নাফিউর রহমান জানান, মায়ানমার থেকে ইয়াবার বড় একটি চালান আসার খবরে শুক্রবার ভোরে সেন্টমার্টিনের ছেড়াদ্বীপ এলাকা থেকে দেড় নটিক্যাল মাইল দক্ষিণে সাগরে অভিযান চালানো হয়। এ সময় কোস্টগার্ডের অভিযানকারীদল সন্দেহজনক ২টি ট্রলারে তল্লাশি করে ১ লাখ ৫০ হাজার ইয়াবা উদ্ধার এবং বোটে থাকা ১৫ পাচারকারীকে আটক করে। আটককৃতরা কক্সবাজারের বিভিন্ন উপজেলার বাসিন্দা।

লে. নাফিউর রহমান জানান, ইয়াবা পাচারে ব্যবহৃত বোট ২টি জব্দ করা হয়েছে। আটককৃতদের বিরুদ্ধে টেকনাফ থানায় মামলা করার প্রস্তুতি চলছে।

বিজিবির টেকনাফ ২ ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লে. কর্নেল আবুজার আল জাহিদ জানান, শুক্রবার ভোরে ইয়াবা পাচারের খবরে টেকনাফ সদর ইউনিয়নের নাইট্যংপাড়া এবং সাবরাংয়ে পৃথক অভিযান চালায় বিজিবির টহলদল। এ সময় নাইট্যংপাড়া থেকে ৫০ হাজার এবং সাবরাং থেকে ২০ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। তবে অভিযানে বিজিবির উপস্থিতি টের পেয়ে পাচারকারীরা পালিয়ে যাওয়ায় কাউকে আটক করা সম্ভব হয়নি। উদ্ধারকৃত ইয়াবা বিজিবি টেকনাফ ব্যাটালিয়ন দপ্তরে রাখা হয়েছে।

এদিকে শুক্রবার সকালে কক্সবাজার-টেকনাফ মেরিন ড্রাইভ সড়কের রামুর রেঁজুখাল-সংলগ্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে ৯৯৬টি ইয়াবাসহ এক পাচারকারীকে আটক করেছে বিজিবি। আটক দীল মোহাম্মদ (২৩) উখিয়ার জালিয়াপালং ইউনিয়নের পশ্চিম সোনাইছড়ি এলাকার ছৈয়দ নুরের ছেলে।

বিজিবি কক্সবাজার ৩৪ ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লে. কর্নেল ইমরান উল্লাহ সরকার জানান, কক্সবাজার-টেকনাফ মেরিন ড্রাইভ সড়কের রামুর রেঁজুখাল ব্রিজের দক্ষিণ পাশে উখিয়ার অংশে সন্দেহজনকভাবে ঘোরাঘুরি করার সময় দীল মোহাম্মদকে থামিয়ে তল্লাশি চালানো হয়। এ সময় তার দুই উরুতে বিশেষ কৌশলে লুকিয়ে রাখা অবস্থায় ৯৯৬টি ইয়াবা পাওয়া যায়। আটক যুবকের বিরুদ্ধে সংশ্লিষ্ট আইনে উখিয়া থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।

শেষ পাতা'র আরও সংবাদ
Bhorerkagoj