ভাঙ্গায় ক্রিকেট খেলা নিয়ে সংঘর্ষে পুলিশসহ আহত ৫০

মঙ্গলবার, ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৬

সুবোধ চন্দ্র মালো, ভাঙ্গা (ফরিদপুর) থেকে : ভাঙ্গা উপজেলার আলগী ইউনিয়নের বালিয়াচরা গ্রামে গত রোববার রাতে ক্রিকেট খেলাকে কেন্দ্র করে গ্রামবাসীর মধ্যে এক রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষ হয়। ৪ ঘণ্টাব্যাপী সংঘর্ষে পুলিশ ও মহিলাসহ অন্তত ৫০ জন আহত হয়েছেন। সংবাদ পেয়ে পুলিশ দ্রুত ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। এ সময় ঘটনাস্থল থেকে ৮ গ্রামবাসীকে আটক করে পুলিশ। আহতদের ভাঙ্গা ও ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। আহতদের মধ্যে রয়েছেন থানার উপপরিদর্শক সালাউদ্দিন ও কনস্টেবল আল-আমিন, বালিয়াচরা গ্রামের নাছির বেপারি (৩৫), ইকবাল মৃধা (১৯), আলেয়া বেগম (৪৫), শিফালী বেগম (২০), আয়শা বেগম (৭০), হালিমা বেগম (৫০), মো. রিয়াদ (১৮), তারা বেগম (৫০), রাজ্জাক মুন্সী (২৬), কামরুল ইসলাম (২৩), হেমায়েত মাতুব্বার (৬২), বন্দন মুন্সী (১৪), নুরআলম (১৮), আ.হাই (৫০), সেলিম মাতুববার (১৮), সাহাবুদ্দিন (২২), আসরাফুল (১৫), শুকুর আলী (২৫), চাতকী আক্তার (৩০), জাকু মাতুববার (৫২), জিহাদ মাতুববার (২১), মলিনা বেগম (২৫) প্রমুখ।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা যায়, গত রোববার বিকেলে বালিয়াচরা মাঠে ওই গ্রামের দুদল যুবকের মধ্যে ক্রিকেট খেলা চলছিল। এ সময় ক্রিকেট খেলা নিয়ে কথা-কাটাকাটির একপর্যায়ে হাতাহাতির ঘটনা ঘটে। রাতে দেলোয়ার মাতুব্বার গ্রুপ ও কামাল মাতুব্বার গ্রুপের লোকজন দেশীয় অস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষে লিপ্ত হয়।

ভাঙ্গা থানার ওসি মো. মিজানুর রহমান জানান, ক্রিকেট খেলা নিয়ে বালিয়াচরা গ্রামের লোকজন সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়লে আমরা দ্রুত গিয়ে পরিস্থিতি শান্ত করি। তখন ঘটনাস্থল থেকে ৮ জনকে আটক করি।

শেষ পাতা'র আরও সংবাদ
Bhorerkagoj