সিরিয়ায় আরেকটি রাজ্য দখল করে নিল আইএস

শনিবার, ৩০ মে ২০১৫

কাগজ ডেস্ক : সিরিয়ার উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলীয় রাজ্য ইডলিবও এখন আইএসের দখলে। সিরীয় রাষ্ট্রীয় সংবাদমাধ্যমও নিশ্চিত করেছে এ খবর।

সিরিয়ার প্রেসিডেন্ট বাশার আল আসাদের অনুগত বাহিনীকে পিছু হটতে বাধ্য করে আরেকটি গুরুত্বপূর্ণ অঞ্চলও দখল করে নিয়েছে ইসলামি জঙ্গি সংগঠন ইসলামিক স্টেট (আইএস)। গত সপ্তাহে মধ্য সিরিয়ার প্রাচীন নগরী পালমিরার নিয়ন্ত্রণ নিয়েছিল তারা। এবার আরিহা শহরও ছেড়ে যেতে বাধ্য হওয়ায় আসাদের অনুগত বাহিনী বস্তুতপক্ষে দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের ওপরই নিয়ন্ত্রণ হারাল।

এদিকে ব্রিটেনভিত্তিক মানবাধিকার সংস্থা সিরিয়ান অবজারভেটরি ফর ফর হিউম্যান রাইটস জানিয়েছে, গতকাল শুক্রবার আরিহার আশপাশের আরো কিছু জেলাও দখল করতে শুরু করেছে আইএস। ইডলিব রাজ্যে শুধু আরিহাই এত দিন বাশার আল আসাদের বাহিনীর নিয়ন্ত্রণে ছিল। এটিও আইএসের দখলে চলে যাওয়ায় পার্শ্ববর্তী উপক‚লীয় রাজ্য লাটাকিয়াও এখন ঝুঁকির মধ্যে।

আসাদের অনুগত বাহিনী বস্তুতপক্ষে দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের ওপরই নিয়ন্ত্রণ হারাল। ইডলিবের ওপর ধীরে ধীরে পূর্ণ নিয়ন্ত্রণ প্রতিষ্ঠার মাধ্যমে আইএস আসলে লাটাকিয়ায় হামলা চালানোর পথও উন্মুক্ত করছে। প্রসঙ্গত, লাটাকিয়া বাশার আল আসাদের অনুগত বাহিনীর খুব গুরুত্বপূর্ণ ঘাঁটি।

ইরাকেও সাম্প্রতিক সময়ে সাফল্যই পাচ্ছে আইএস। কয়েক দিন আগে তারা রামাদি দখল করে নেয়। আইএসকে আরো শক্তিশালী করতে নানা দেশ থেকে চরমপন্থী মানসিকতার নারী-পুরুষের সিরিয়া এবং ইরাকে যাওয়ার চেষ্টাও চলছে।

অস্ট্রেলিয়ার পুলিশ জানিয়েছে, সে দেশ থেকে কিছু দিনে কমপক্ষে ১০০ জন দেশ ছেড়েছে। আইএসে যোগ দেয়ার জন্য তারা সিরিয়া বা ইরাকে গিয়েছেন বলে ধারণা করা হচ্ছে। এ ছাড়া ১২ জন নারীও আইএসে যোগ দেয়ার জন্য দেশ ছাড়ার চেষ্টা করেছিলেন বলে জানিয়েছে অস্ট্রেলিয়ার পুলিশ।

দূরের জানালা'র আরও সংবাদ
Bhorerkagoj