ফের ‘আ.লীগকে’ চান অবসরপ্রাপ্ত ৩২১ কর্মকর্তা

আগের সংবাদ

আপিলে ১৫৮ জনের প্রার্থিতা ফেরত, বাতিল ১৪১

পরের সংবাদ

বাংলাদেশ-ওয়েস্ট ইন্ডিজকে নিয়ে আয়ারল্যান্ডের ত্রিদেশীয় সিরিজ

প্রকাশিত হয়েছে: ডিসেম্বর ৭, ২০১৮ , ৮:৪৯ অপরাহ্ণ | আপডেট: ডিসেম্বর ৭, ২০১৮, ৮:৪৯ অপরাহ্ণ

বিশ্বকাপের ঠিক আগ মুহূর্তে বাংলাদেশ এবং ওয়েস্ট ইন্ডিজকে নিয়ে একটি ত্রিদেশীয় সিরিজ আয়োজন করতে যাচ্ছে আয়ারল্যান্ড। আজ এ বিষয়ে ঘোষণা দিয়েছে আয়ারল্যান্ড ক্রিকেট বোর্ড। বিশ্বকাপের জন্য প্রস্তুতিমূলক সিরিজ হিসেবেই একে এক দারুণ সুযোগ হিসেবে গ্রহণ করে নিয়েছে বাংলাদেশ এবং ওয়েস্ট ইন্ডিজ।

৫ মে শুরু হবে এই ত্রিদেশীয় সিরিজ। বাংলাদেশ, আয়ারল্যান্ড এবং ওয়েস্ট ইন্ডিজ- এই তিন দল গ্রুপ পর্বে পরস্পর দু’বার করে মুখোমুখি হবে। এর মধ্যে সেরা দু’দল খেলবে ফাইনাল। ১৭ মে অনুষ্ঠিত হবে টুর্নামেন্টের ফাইনাল।

৩০ মে থেকে ইংল্যান্ডে শুরু হতে যাচ্ছে জমজমাট আইসিসি ক্রিকেট বিশ্বকাপ। তার আগে প্রস্তুতি ম্যাচ খেলবে প্রতিটি দলই। ইংল্যান্ডের পাশে হওয়ার কারণে আয়ারল্যান্ডই অনেকের পছন্দ। যদিও আইরিশরা এবার নেই বিশ্বকাপে। তবুও সুযোগটা কাজে লাগাতে চায় তারাও। বিশ্বকাপ উপলক্ষে বেশ কয়েকটি দেশের সঙ্গে ওয়ানডে এবং টি-টোয়েন্টি সিরিজ খেলবে তারা।

সব মিলিয়ে মোট ১৬টি আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলবে আইরিশরা। ত্রিদেশীয় সিরিজ এবং ইংল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজ ছাড়াও আয়ারল্যান্ড আফগানিস্তানের বিপক্ষে দুই ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ এবং জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে তিন ম্যাচের ওয়ানডে এবং ৩ ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজ খেলবে তারা। বাংলাদেশ-ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে ত্রিদেশীয় সিরিজ শুরুর দু’দিন আগেই মালাহাইডে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ম্যাচ খেলবে আইরিশরা।

আইরিশদের এইসব ম্যাচ খেলে যাওয়ার পেছনে মূল উদ্দেশ্য, ক্রিকেটের মক্কাখ্যাত লর্ডসে প্রথমবারেরমত ইংল্যান্ডের বিপক্ষে টেস্ট খেলতে যাবে আয়ারল্যান্ড। সেই ম্যাচের জন্যই নিজেদের ঝালিয়ে নেয়া। ২০১৭ সালে টেস্ট স্ট্যাটাস পাওয়ার পর ঘরের মাঠ মালাহাইডে পাকিস্তানের বিপক্ষে নিজেদের ইতিহাসের প্রথম টেস্ট খেলে আয়ারল্যান্ড। যে ম্যাচে পাকিস্তান জয় পেয়েছিল ৫ উইকেটে।

এছাড়া আগামী মার্চে আফগানিস্তানের বিপক্ষেও একটি টেস্ট খেলার কথা রয়েছে আইরিশদের।