রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে আইডিবির সহযোগিতা চাইলেন প্রধানমন্ত্রী

আগের সংবাদ

সমুদ্রের করাল গ্রাসে কুয়াকাটা জাতীয় উদ্যান

পরের সংবাদ

উন্মুক্ত হলো চট্টগ্রামের দৃষ্টিনন্দন জাম্বুরি পার্ক

প্রকাশিত হয়েছে: সেপ্টেম্বর ৯, ২০১৮ , ৩:১৯ অপরাহ্ণ | আপডেট: সেপ্টেম্বর ৯, ২০১৮, ৩:১৯ অপরাহ্ণ

আনুষ্ঠানিকভাবে উন্মুক্ত হলো চট্টগ্রামের মানুষের স্বপ্নের পার্ক ‘জাম্বুরি পার্ক’। গতকাল বিকেলে গিয়ে দেখা যায়, পার্কজুড়ে উপচেপড়া ভিড়। নানা বয়সী মানুষ কেউ দল বেঁধে হাঁটছেন, কেউ বসে আড্ডা দিচ্ছেন। সন্ধ্যা নামার সঙ্গে সঙ্গে বিনোদনপ্রিয় মানুষের ভিড় বেড়ে যায়। সব মিলিয়ে চট্টগ্রামে ব্যাপক সাড়া ফেলেছে পার্কটি। বিনোদনের পাশাপাশি একই সঙ্গে এটি হয়ে উঠেছে বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষের প্রশান্তির উন্মুক্ত উদ্যান।
গতকাল এ পার্কের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে গণপূর্তমন্ত্রী ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন বলেন, সবার জন্য জাম্বুরি পার্ক একটি স্বাস্থ্য সচেতন পার্ক হিসেবে গড়ে তোলা হয়েছে। এটিকে পরিষ্কার-পরিছন্ন রাখার দায়িত্ব আপনাদের। তিনি বলেন, আগ্রাবাদ শিশু পার্কের জায়গায় ফুটবল, ক্রিকেট ও হকির জন্য তিনটি আলাদা মাঠ তৈরি করা হবে। ওই মাঠে রাতের বেলা প্র্যাকটিস করার সুযোগ সৃষ্টির জন্য লাইটিংয়ের ব্যবস্থা করা হবে।
অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন জেলা পরিষদের প্রশাসক এম এ সালাম, সাংসদ এম এ লতিফ, দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মুফিজুর রহমান প্রমুখ। গণপূর্ত অধিদপ্তর চট্টগ্রামের প্রধান প্রকৌশলী মোহাম্মদ রফিকুল ইসলামের সভাপতিত্বে স্বাগত বক্তব্য রাখেন অতিরিক্ত প্রধান প্রকৌশলী মোসলেম উদ্দীন আহমেদ। এর আগে আগ্রাবাদের সিজিএস কলোনিতে সরকারি কর্মচারীদের নয়টি ২০ তলা ভবন নির্মাণের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেন মন্ত্রী।
স্বাস্থ্য সচেতন মানুষের শরীর চর্চার সুবিধার্থে প্রতিদিন ভোর ৫টা থেকে সকাল ৮টা পর্যন্ত পার্কটি খোলা থাকবে। আর বিকেল ৪টা থেকে রাত ৯টা পর্যন্ত পার্কটি বিনোদন পিপাসুদের জন্য খোলা রাখা হবে।
সপ্তাহের সাত দিনই পার্কটি খোলা রাখা হবে। পার্ক এলাকায় দুটি গণশৌচাগার, গভীর নলক‚প ও একটি বিদ্যুতের উপকেন্দ্র রয়েছে। পার্কে প্রবেশের জন্য রয়েছে ছয়টি গেট। নিরাপত্তা রক্ষার দায়িত্বে রয়েছেন ছয়জন কর্মী। পার্ক পরিষ্কার রাখতে এখানে কোনো রেস্তোরাঁ রাখা হয়নি। পার্কে প্রবেশে কোনো প্রবেশ ফি লাগবে না।