গরমে শিশুর যত্ন

আগের সংবাদ

ওয়ালটন ফ্যান কিনে নতুন গাড়ি পেলেন ব্যবসায়ী

পরের সংবাদ

শিশু হঠাৎ ব্যথা পেলে করণীয়

প্রকাশিত হয়েছে: সেপ্টেম্বর ৫, ২০১৮ , ৩:২৬ অপরাহ্ণ | আপডেট: সেপ্টেম্বর ৫, ২০১৮, ৩:২৬ অপরাহ্ণ

খেলতে গিয়ে, বাড়িতে বা স্কুলে শিশুরা প্রায়ই ব্যথা বা চোট পায়। এতে তাদের ত্বকের কোনো অংশ হয়তো ছিঁড়ে যায়, কোথাও আঘাতের ফলে ত্বক লাল বা নীল হয়, কখনো আলুর মতো ফুলে ওঠে, কখনো বা থেঁতলে যায়। এ রকম পরিস্থিতিতে কী করবেন?

প্রথম কথা হলো, শিশুর সামনে আপনি নিজে ঘাবড়ে যাবেন না বা হইচই করবেন না। এতে সে আরও ভয় পেয়ে যাবে। মাথা ঠান্ডা রাখুন। তাকে আশ্বস্ত করুন ও আঘাতের জায়গাটি ভালো করে দেখুন।

ত্বকের ওপরের স্তর উঠে গিয়ে নিচের লাল অংশ দেখা গেলে তাকে বলে অ্যাব্রেসন। সাধারণত কোনো কিছুর সঙ্গে জোরে ঘষা লেগে (যেমন: ফুটবল খেলতে গিয়ে পড়ে গেলে) এ রকম আঘাত লাগে। এসব ক্ষেত্রে আঘাতের স্থানটা ধরার আগে নিজে ভালো করে সাবান দিয়ে হাত ধুয়ে নিন। তারপর আঘাতের অংশটাও হালকা সাবান-পানি দিয়ে ধুয়ে নিন যাতে ওখানে ময়লা, ধুলা, নুড়িপাথর লেগে না থাকে। এবার আলতো করে অ্যান্টিসেপটিক ক্রিম লাগিয়ে দিন। স্পিরিট বা ডেটলজাতীয় কিছু দেবেন না। এতে জ্বালা করবে ও শিশু আরও ভয় পাবে। ক্ষত পরিষ্কার দেখালে ও রক্তপাত না হলে জায়গাটা ওভাবেই রেখে দিতে পারেন। তবে যদি মনে করেন যে ময়লা লেগে যাওয়ার সম্ভাবনা আছে, পরিষ্কার গজ বা কাপড়ের টুকরো দিয়ে ড্রেসিং করে দিতে পারেন। দু-এক দিন পর ক্ষতটা কালো বা বাদামি আবরণ দিয়ে ঢেকে যাবে। একে বলে ক্রাস্ট। এই ক্রাস্ট টেনে তোলার দরকার নেই। এটা আবার নিজে নিজেই ঝরে যাবে ও ভেতরে নতুন ত্বক দেখা যাবে।

আঘাতের কারণে ত্বকের নিচে রক্তক্ষরণ হলে জায়গাটা লাল বা নীলচে হয়ে যায়। একে বলে ব্রুইস। এমনটা হলে

  • আরও পড়ুন
  • লেখকের অন্যান্য লেখা