চুয়াডাঙ্গার জীবননগরে মাদক ব্যবসায়ী গুলিবিদ্ধ

আগের সংবাদ

সড়ক দুর্ঘটনার দায়ে বুলগেরিয়ার ৩ মন্ত্রী বরখাস্ত

পরের সংবাদ

কাশ্মীরে অপহৃত পুলিশ পরিবারের ১১ স্বজন মুক্ত

প্রকাশিত হয়েছে: সেপ্টেম্বর ১, ২০১৮ , ১২:১৫ অপরাহ্ণ | আপডেট: সেপ্টেম্বর ১, ২০১৮, ১২:১৫ অপরাহ্ণ

ভারত শাসিত কাশ্মীরের পুলিশ পরিবারের ১১ স্বজনকে ছেড়ে দেয়া হয়েছে। শুক্রবার রাতে তাদের ছেড়ে দেয়া হয়। এনডিটিভি’র খবরে তা বলা হয়েছে। তবে শর্ত হিসেবে কাশ্মীরের হিযবুল মুজাহিদিন প্রশাসনের কাছে তাদের ধরে নেয়া স্বজনদের তিন দিনের মধ্যে মুক্তির শর্ত দিয়েছে।

স্বজনদের মুক্তি না দিলে পুলিশের আত্মীয়স্বজনকে রেহাই দেয়া হবে না বলেও হুঁশিয়ারি দিয়েছে তারা।

আইনশৃঙ্খলা বাহিনী গত বৃহস্পতিবার সকালে দক্ষিণ কাশ্মীরে সন্ত্রাসবিরোধী অভিযানের নামে হিযবুল মুজাহিদিনের সদস্যদের ১১ স্বজনকে ধরে নিয়ে যায়। এর মধ্যে শ্রীনগরের রামবাগ থেকে হিযবুল নেতা সালাউদ্দিনের ছেলে শাকিলকে গ্রেপ্তার করে এনআইএ।অবন্তিপোরায় হানা দিয়ে তিন পুলিশ সদস্য ও তাদের ৮ স্বজনকে অপহরণ করেছিল। অপহৃত পুলিশ সদস্যদের মধ্যে একজন এসআই র‍্যাঙ্কের।

প্রায় তিন দশক ধরে কাশ্মীরে চলতে থাকা সশস্ত্র আন্দোলনে এর আগে কখনো এত বেশি সংখ্যক পুলিশ পরিবার ও তাদের পরিজনরা আক্রান্ত হননি। শুক্রবার রাতে এক অডিও বার্তায় হিজবুল মুজাহিদিন কমান্ডার রিয়াজ নাইকু অপহৃতদের মুক্তির কথা ঘোষণা করেন।

এতে তিনি হুমকি দিয়ে বলেন, তার সতীর্থদের যেসব আত্মীয়-স্বজনকে নিরাপত্তা বাহিনী আটক করেছে, তাদের তিন দিনের মধ্যে ছেড়ে না দিলে পুলিশের আত্মীয়দের আরও বড় শাস্তি পেতে হবে।

রিয়াজ নাইকু বলেন, এতদিন আমরা কাশ্মীরের পুলিশকে আমাদের রাজ্যের মানুষ বলে মনে করতাম। কিন্তু এখন দেখা যাচ্ছে, লড়াইয়ের ময়দানে তারাই ফ্রন্টলাইনে থাকছে।

এ ঘটনার পর নিরাপত্তা বাহিনীর হাজার হাজার সদস্যদের পরিবার-পরিজন নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছেন। তবে পুলিশের শীর্ষ কর্তারা নির্দেশ দিয়েছেন, কোনো নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্য যেন এই মুহূর্তে ছুটি নিয়ে বাড়িতে না যান এবং একা ঘোরাফেরা না করেন।