গ্লাক্সোস্মিথক্লাইনের ইজিএম ১৪ অক্টোবর

আগের সংবাদ

বিপদে হৃত্বিক রোশন

পরের সংবাদ

টাইগারদের বৈচিত্র্যময় অনুশীলন

প্রকাশিত হয়েছে: আগস্ট ২৯, ২০১৮ , ৩:২১ অপরাহ্ণ | আপডেট: আগস্ট ২৯, ২০১৮, ৩:২১ অপরাহ্ণ

বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের দায়িত্ব নেয়ার পর স্টিভ রোডসের নেতৃত্বে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে ওয়ানডে এবং টি-টোয়েন্টি সিরিজ জয় করে মাশরাফি-সাকিবরা। সেই থেকে ক্রিকেটারদের সঙ্গে রোডসের বন্ধুত্বসুলভ সম্পর্কও গড়ে ওঠে। এবার আসন্ন এশিয়া কাপকে সামনে রেখে কঠোর অনুশীলন করছে টাইগাররা। গতকাল দ্বিতীয় দিনে বৈচিত্র্যময় অনুশীলন করেছে রুবেল-মিরাজরা। ইংলিশ কোচ ফিল্ডিং সেশনে অনেক্ষণ ধরেই ক্যাচ অনুশীলন করান। আর নিয়ম করে দেন ক্যাচ ধরতে হবে এক হাতে! টাইগাররা তাই এক হাতে ক্যাচ ধরার অনুশীলন করেন। ক্রিকেট ম্যাচে বেশির ভাগ সময়ই এক হাতের ক্যাচ দেখা মিলে ¯িøপ কিংবা বাউন্ডারি লাইনের আশপাশে। খেলোয়াড়রাও তার জন্য আলাদা করে অনুশীলন করে থাকেন। তবে বাউন্ডারি লাইনে বা অন্য পজিশনে এক হাতে ক্যাচ ধরার অনুশীলন নতুনই টাইগারদের জন্য। অনুশীলন শেষে বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের বোলিং অলরাউন্ডার মেহেদী হাসান মিরাজ এক সংবাদ সম্মেলনে এশিয়া কাপ নিয়ে বলেন, খেলা হবে এশিয়ান কন্ডিশনেই। এমন কন্ডিশনে আমরা অনেক খেলেছি। সব ঠিক থাকলে খুব ভালো ফলাফল পাব আমরা। তিনি আরো বলেন, যেখানেই খেলি না কেন চ্যালেঞ্জ থাকবেই। প্রতিটা খেলাই কিন্তু এক একটা চ্যালেঞ্জ। আমাদের দলে সবাই কঠোর পরিশ্রম করছে। ব্যক্তিগত উদ্যোগেও অনেকে বিভিন্ন অনুশীলন করছে। আশা করি সবার এই পরিশ্রম কাজে লাগবে। শুধু যার যার সেরাটা দিতে পারলেই হবে। আমরা গত চার বছর ধরেই ভালো ক্রিকেট খেলে আসছি। বিশ^কাপ দেখেন, দেশে বলেন আর বাইরে বলেনÑ আমরা অনেক ভালো ক্রিকেট খেলেছি, দাপুটে পারফরমেন্স দেখিয়েছি। এসবই আমাদের আত্মবিশ^াস বাড়িয়ে দিয়েছে।
গতকাল অনুশীলনে কোচের সঙ্গে বেশ ফুরফুরে মেজাজেই দেখা যায় মাশরাফি বাহিনীকে। মিরপুর শেরেবাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে গতকাল অনুশীলনে ফিল্ডিংয়ের ওপর জোর দেন স্টিভ রোডস। এদিকে বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের টেস্ট এবং টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক সাকিব আল হাসান এশিয়া কাপে দলের সঙ্গেই থাকবেন বলে জানা যায়।
হাথুরুসিংহের পর বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের কোচ হন স্টিভস রোডস। ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরে ওয়ানডে এবং টি-টোয়েন্টি সিরিজ জিতে প্রশান্তির হাওয়া বয়ে আনে। এরপর থেকে বেশ আনন্দেই রয়েছেন টাইগার কোচ এবং ক্রিকেটাররা। আর গতকাল তার প্রমাণ পাওয়া গেল। কোচের বন্ধুসুলভ আচরণ ও সহযোগিতাপূর্ণ মানসিকতা মনে ধরেছে ক্রিকেটারদের। অনুশীলনের দ্বিতীয় দিনে রোডসের সঙ্গে অনুশীলনটা বেশ উপভোগ করছেন ক্রিকেটাররা। সংযুক্ত আরব আমিরাতে অনুষ্ঠিতব্য এশিয়া কাপের ১৪তম আসরকে নিয়ে অনেকটা আশাবাদী টাইগাররা কোচ। শিরোপা জয়ের লক্ষ্যে ইতোমধ্যেই প্রস্তুতি গ্রহণ করা শুরু করে দিয়েছে মাশরাফিরা। গতকাল প্রস্তুতিতে ফিল্ডিংয়ের বিষয়টিকে গুরুত্ব দেন রোডস। বাংলাদেশ দলের খেলোয়াড়রা যে ফিল্ডিংয়ে বেশ দুর্বল তা আর বলার অপেক্ষা রাখে না। এশিয়া কাপে যাতে ভোগান্তিতে পড়তে না হয় সে লক্ষ্যে শিষ্যদের আগেভাগেই প্রস্তুত করে নিচ্ছেন রোডস। উল্লেখ্য, আসন্ন এশিয়া কাপ টুর্নামেন্ট সংযুক্ত আরব আমিরাতে ১৫ সেপ্টম্বর থেকে শুরু হবে। চলবে ৩০ সেপ্টম্বর পর্যন্ত। এশিয়ার ক্রিকেট খেলুড়ে ছয়টি দল এতে অংশ নেবে। ‘বি’ গ্রæপে বাংলাদেশের সঙ্গে রয়েছে শ্রীলঙ্কা এবং আফগানিস্তান। উদ্বোধনী ম্যাচে বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ লঙ্কানরা।